সোমবার , আগস্ট ১০ ২০২০
সংবাদ শিরোনাম
Home » সারাদেশ » ঢাকা » গাজীপুর » ধামরাইয়ে মাকে ধর্ষণে ব্যার্থ হয়ে ৬ বছরের শিশুকে ধর্ষণ করে হত্যার চেষ্টা

ধামরাইয়ে মাকে ধর্ষণে ব্যার্থ হয়ে ৬ বছরের শিশুকে ধর্ষণ করে হত্যার চেষ্টা

মোঃ সিরাজুল ইসলাম ধামরাই (ঢাকা) প্রতিনিধিঃ ঢাকার ধামরাইয়ে কুশুরা এলাকায় মাকে ধর্ষণে ব্যার্থ হয়ে ৬- বছরের মেয়েকে ধর্ষণ করে হত্যার চেষ্টা। স্থানীয় ওয়ার্ড মেম্বারকে ঘটনা বলায়, বাড়ী ঘর অবরুদ্ধ করে বাড়ী জালিয়ে দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

২২ মার্চ রবিবার ধামরাই উপজেলার কুশুরা ইউনিয়নের কুশুরা গ্রামে এই ঘটনাটি ঘটে। ধর্ষণকারীর বাড়ী একই গ্রামের মৃত ময়জুদ্দিনের ছেলে মোঃ রফিকুল ইসলাম -৫৫- (রুফু) তিনি এলাকায় জমির ব্যাবসা করেন বলে জানাগেছে।
এই ব্যাপারে কুশুরা এলাকার লোকজন বলেন, রফিকুল ইসলাম (রুফু) আগে থেকেই ভাল না শুনেছি। সে এর আগে হযরত আলীর বউয়ের ঘরে ডোকে ছিল। সেখানে হযরত আলীর বউয়ের ইজ্জতের উপর হামলা করে ব্যার্থ হয়ে ছোট পাঁচ বছরের অবোঝ বাচ্চাকে মজা খাওনোর লোভ দেখিয়ে ডেকে নিয়ে নদীর পারে ধর্ষণ করে। পরে তার ডাকচিৎকারে আশে পাশের লোকজন ছুটে গেলে রুফু সেখান থেকে দৌড়িয়ে পালিয়ে যায়। এর পর হযরত আলীর স্ত্রী সুমী আক্তার দিশা মিশা না পেয়ে ওয়ার্ড মেম্বার মোঃ আজাহার আলীকে বিষয়টি খুলে বলে। পরে মেম্বার আজার বিষয়টি নিয়ে কথা বলতে গেলে, রফিকুল মেম্বারের কথা না শুনে উল্টো বলে আমাকে মিথ্যাভাবে ফাঁসানো হয়েছে।
এই ব্যাপারে ওয়ার্ড মেম্বার মোঃ আজাহার আলী বলেন, ঘটনাটি ঘটার পরে মেয়ের মা আমার কাছে বিষয়টি বলেছে আমি বলেছি ঘটনা সত্যি হয়ে থাকলে আপনারা আইনের মাধ্যমে চলে যান।
এই ব্যাপারে ধর্ষিতার মা সুমি আক্তার বলেন, বেশ কিছু দিন আগে রুফু আমার কাছে এসে বলে দুই হাজার টাকা নেও তোমার জামা কাপড় তৈরি করিও। তখন আমি তাকে বললাম কেন আমি আপনার টাকা নেব, আমার স্বামীর যা আছে তাতেই চলে যাবে। এর পর রুফু একদিন আমার স্বামী বাড়ী নেই জেনে আমার ঘরে ডোকে। তখন আমার দুই মেয়ে এক ছেলে নিয়ে ঘরে বসে ছিলাম। এই সময় রুফু আমাকে বিভিন্ন ধরণের কথা বলে। তখন আমি তাকে আমার ঘর থেকে বের হতে বলি। কিন্তু রুফু আমার ঘর থেকে এর পর ও বের না হওয়াতে আমি আমার দেবরকে ডাকি। তখণ আমার দেবর আসলে রুফু আমার দিকে বড় বড় চোখ করে চলে যায়। পরে আজ আমার মেয়েকে নদীর পারে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করে হত্যার চেষ্টা করে। আমি এই কথা মেম্বারের কাছে ও মাতাব্বরদের কাছে বলেছি বলে আমাকে বাড়ী থেকে বাহির হতে দেয় নাই। আমার বাড়ী আগুন দিয়ে জালিয়ে দিবে বলে হুমকি দিয়েছে।কারণ আমি গরীব মানুষ। আমি এর সুষ্ট বিচার চাই প্রশাসনের কাছে।
এই ব্যাপারে ধামরাই থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) দীপক চন্দ্র সাহা ঘটনাটি নিশ্চিত করে বলেন, এই বিষয়ে থানায় মামলার হয়েছে। অতিদূত আসামিকে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা হবে।

আরও সংবাদ

কারাবন্দি মোস্তফার পরিবারের খোঁজখবর নিতে কক্সবাজার যাচ্ছেন সাংবাদিক নেতারা

শিক্ষা তথ্যঃ ঢাকা রোববার ৯ আগস্ট ২০২০: টেকনাফ থানার সাবেক ওসি প্রদীপের সীমাহীন বর্বরতায় স্থানীয় …